বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি: মৃ'ত ৩০ জনের পরিচয় মিলেছে

রাজধানীর শ্যামবাজার এলাকা সংলগ্ন বুড়িগঙ্গা নদীতে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চডুবির ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৩২ জনের ম'রদেহ উ'দ্ধার করা হয়েছে। মৃ'তদের মধ্যে পুরুষ ২১ জন, নারী ৮ জন এবং ৩ জন শি'শু। এর মধ্যে ৩০ জনের পরিচয় পরিচয় মিলেছে। দু’জন পুরুষের পরিচয় এখনও জানা যায়নি।

পাঠকদের জন্য সেই ৩০ জনের পরিচয় নিচে তুলে ধ'রা হল-

সত্যরঞ্জন বনিক (৬৫), মিজানুর রহমান (৩২), শহিদুল (৬১), সুফিয়া বেগম (৫০), মনিরুজ্জামান (৪২), সুবর্ণা আক্তার (২৮), মুক্তা (১২), গো'লাম হোসেন ভুইয়া (৫০), আফজাল শেখ (৪৮), বিউটি (৩৮), ছানা (৩৫), আমির হোসেন (৫৫), মো. মহিম (১৭), শাহাদাৎ (৪৪), শামীম ব্যাপারী (৪৭),

মিল্লাত (৩৫), আবু তাহের (৫৮), দিদার হোসেন (৪৫), হাফেজা খাতুন (৩৮), সুমন তালুকদার (৩৫), আয়শা বেগম (৩৫), হাসিনা রহমান (৪০), আলম বেপারী (৩৮), মোসা. মা'রুফা (২৮), শহিদুল হোসেন (৪০), তালহা (২), ইসমাইল শরীফ (৩৫), সাইফুল ইলাম (৪২), তামিম ও সুমনা আক্তার।

সদরঘাট নৌ থা'নার ভা'রপ্রাপ্ত কর্মক'র্তা (ওসি) রেজাউল করিম ভূঁইয়া জানান, ম'রদেহগুলোর ময়নাত'দন্তের জন্য মিটফোর্ড হাসপাতা'লে নেয়া হয়েছে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৮ নারী ও ৩ শি'শুসহ ৩২ জনের ম'রদেহ উ'দ্ধার করা হয়েছে।

তাদের মধ্যে ৩০ জনের পরিচয় মিলেছে। তবে এখনও কতজন নি'খোঁজ রয়েছেন, তা স্পষ্ট নয়। এখনও পর্যন্ত ফায়ার সার্ভিসের পাশাপাশি নৌবাহিনী, কোস্টগার্ড, নৌ পু'লিশ ও বিআইডব্লিউটিএর কর্মীরাও উ'দ্ধার তৎপরতা চালাচ্ছেন।

প্রসঙ্গত, সোমবার সকাল ৯টার দিকে মুন্সিগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা দোতলা ম'র্নিং বার্ড লঞ্চটি সদরঘাট কাঠপট্টি ঘাটে ভেড়ানোর আগ মুহূর্তে চাঁদপুরগামী ময়ূর-২ লঞ্চটি ধাক্কা দেয়। এতে সঙ্গে সঙ্গে তুলনামূলক ছোট ম'র্নিং বার্ড লঞ্চটি ডুবে যায়। লঞ্চডুবির ঘটনায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ৩২ জনের ম'রদেহ উ'দ্ধার করা হয়েছে। আ'হত একজনকে উ'দ্ধার করে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।